এত জল ও কাজল চোখে, পাষাণী আন্‌লে বল কে

এত জল ও কাজল চোখে, পাষাণী আন্‌লে বল কে।
টলমল জল–মোতির মালা দুলিছে ঝালর–পলকে।।
দিল কি পুব হাওয়াতে দোল, বুকে কি বিঁধিল কেয়া?
কাঁদিয়া কুটিলে গগন এলায়ে ঝামর–অলকে।।
চলিতে পৈঁচি কি হাতের বাঁধিল বৈচি–কাঁটাতে?
ছাড়াতে কাঁচুলির কাঁটা বিঁধিল হিয়ার ফলকে।।
মুকুলী–মন সেধে সেধে কেবলি ফিরিনু কেঁদে,
সরসীর ঢেউ পলায় ছটি’ না ছুঁতেই নলিন–নোলকে।।
বুকে তোর সাত সাগরের জল, পিপাসা মিটিল না কবি
ফটিক জল! জল খুঁজিস্‌ যেথায় কেবলি তড়িৎ ঝলকে।।

error: